আন্তর্জাতিক ফুটবল

আমি ফেলনা নই, বার্সেলোনাকে রাকিতিচ

বয়স বাড়ছে। ধীরে ধীরে বদলাচ্ছে চিত্র। বার্সেলোনার এক সময়ের নিয়মিত মুখ ইভান রাকিতিচ এখন হয়ে গেছেন অনিয়মিত। এর মাঝেই নেইমারকে ফেরানোর অংশ হিসেবে রাকিতিচকে পিএসজিতে পাঠানোর প্রস্তাব দেওয়া হয়। ক্রোয়াট মিডফিল্ডার এসব নিয়ে হতাশার পাশাপাশি ক্ষোভ প্রকাশ করলেন।   

২০১৪ সালে কাম্প নউয়ে যোগ দেওয়া এই মিডফিল্ডার দলে অনিয়মিত হয়ে পড়েন মূলত ডাচ মিডফিল্ডার ফ্রেংকি ডি ইয়ং আসার পর থেকে। চলতি মৌসুমে লা লিগায় ২৭ ম্যাচের মধ্যে মাত্র ১০টিতে শুরুর একাদশে ছিলেন রাকিতিচ।

স্প্যানিশ পত্রিকা মুন্দো দেপোর্তিভোকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে হতাশার পাশাপাশি কড়া ভাষায় ক্লাবের সমালোচনা করেছেন ৩২ বছর বয়সী এই ক্রোয়াট।
 
“আমি পরিস্থিতি বুঝতে পারছি, কিন্তু আমি এতটা ফেলনা নই যে, আমার সঙ্গে যা খুশি করা যাবে।”
 
“আমি এমন একটি জায়গায় থাকতে চাই, যেখানে আমার চহিদা ও সম্মান আছে। এখানে যদি সেটা থাকে, তাহলে আমি খুবই খুশি। কিন্তু সেটা যদি অন্য কোথাও থাকে, তাহলে আমিই ঠিক করব তা কোথায়, অন্য কেউ নয়।”
 
গত বছর নেইমারকে বার্সেলোনায় ফেরানোর প্রচেষ্টার অংশ হিসেবে রাকিতিচকে দেওয়া হয়েছিল পিএসজিতে যাওয়ার প্রস্তাব। কিন্তু সেই প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিলেন বলে নিশ্চিত করেন রাকিতিচ।
 
“যে ছয় বছর এখানে আছি এর মধ্যে গত বছরটা ছিল সেরা। এরপর আমার সঙ্গে যে আচরণ করা হয়েছিল তাতে আমি ছিলাম বিরক্ত। আমি খুব অবাক হয়েছিলাম এবং বিষয়টা বুঝতে পারছিলাম না। ফলাফলটা ভালো ছিল না এবং (এরপর) আমি খুব বেশি খেলিনি, এজন্য কষ্ট পেয়েছি।”
 
“মৌসুমের প্রথমার্ধটা আমার কাছে ছিল অদ্ভুত, আমার জন্য এটি ছিল অস্বস্তিকর ও অবাক করার মতো। তবে আশা করছি চুক্তির এই শেষ বছরটা পার করতে পারব।”
 
করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্বের অধিকাংশ দেশের মত স্প্যানিশ লা লিগাও বন্ধ রয়েছে। পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে আছে বার্সেলোনা।

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ

To Top