এভাবে হুরমুড়িয়ে ভেঙে পড়াটা সত্যি হতাশার: মাশরাফি

খেলাধুলা ডেস্ক
ডিসেম্বর ২৯, ২০১৬
ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এসে হতাশ মাশরাফিও। ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এসে হতাশ মাশরাফিও।

নিউজিল্যান্ডকে ২৫১ রানে আটকে ফেলার পরও ৬৭ রানের বড় পরাজয়। স্বাভাবিক ভাবেই হতাশায় পুড়ছে বাংলাদেশ। ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এসে হতাশ মাশরাফিও।

ব্যাটিং অ্যাপ্রোচটা কি ঠিক ছিল?

ব্যাটসম্যানরা যেভাবে ব্যাটিং করেছে অবশ্যই সেটা হতাশার। ১০০ রানে এক উইকেট থাকার পর এভাবে হুড়মুড়িয়ে ভেঙ্গে পড়াটা সত্যিই হতাশার।

উইকেট কেমন ছিল?

উইকেটের দিকে তাকালে আপনি দেখবেন এগর উইকেটের চেয়ে এটা অনেক ভালো উইকেট ছিলো। ব্যাটসম্যানদের দেখেশুনে খেলা উচিত ছিলো। কিন্তু দুই উইকেট যাওয়ার পর ব্যাটসম্যানরা পাজলড হয়ে গেছে। আমার মনে হয় ধীরস্থির ব্যাটিং করে এই রান চেজ করা উচিত ছিলো। এই ম্যাচ অবশ্যই হতাশার তবে আমাদের সামনের দিকে তাকাতে হবে।

বোলারদের পারফরম্যান্স কেমন মনে হল?

আমাদের বোলাররা আজ যেভাবে বোলিং করেছে এটা ছিলো স্পট অন। শুভাশীষ, তাসকিন এবং স্পিনাররা ঠিক জায়গায় বোলিং করেছে। আমাদের একই কাজটা আগামী ম্যাচেও করতে হবে এবং ব্যাটসম্যানদের ভালো করতে হবে।

নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশন কতটা শক্ত?

আমরা আগে থেকেই জানতাম নিউজিল্যান্ডে স্যুইং, বাউন্স থাকতে পারে। তবে উইকেট আজ বেশ ফ্লাট ছিলো। আমার মনে হয় আমাদের ব্যাটসম্যানরা তাদের পরিকল্পনা মাঠে বাস্তবায়ন করতে পারেনি। যে কারণেই আমরা আউট হয়ে গেছি।

সিরিজ তো হেরেই গেলেন...

আমরা জানতাম সিরিজটা কঠিন হতে যাচ্ছে আমাদের জন্য। তবে আমাদের ঠান্ডা মাথায় থাকতে হবে। আমাদের আবার গুছিয়ে নিতে হবে। আমরা যে ভুলগুলো করেছি সেখান থেকে আমাদের দ্রুত শিখতে হবে। শেষ ম্যাচে আমরা ভালো বোলিং করতে পারিনি আর আজ আমরা ভালো ব্যাটিং করতে পারিনি। আমার মনে হয় আমাদের দ্রুত মানিয়ে নিতে হবে।

Share on your Facebook
Share this post